কুমিল্লায় পুলিশের ১৮টি ভ্রাম্যমাণ দোকান উদ্বোধন

কুমিল্লায় পুলিশের ১৮টি ভ্রাম্যমাণ দোকান উদ্বোধন
বুড়িচং উপজেলার দেবপুর ফাঁড়ি এলাকার ভ্রাম্যমাণ দোকান উদ্বোধন করেন জেলা পুলিশ সুপার মো. সৈয়দ নুরুল ইসলাম। ছবি: সমকাল

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস মহামারী আতঙ্কে বাংলাদেশের মানুষ। আমাদের দেশের প্রতিদিন করোনায় আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। করোনাভাইরাসের বিস্তার প্রতিরোধে সরকার দেশবাসীকে ঘরে থাকার নির্দেশনা দিয়েছে। ফলে মানুষ নিত্যপণ্যের সংকটে পড়ায় কুমিল্লা জেলা পুলিশ এগিয়ে এসেছে। এই সংকটকালে ১৮টি থানা এলাকায় সাশ্রয়ীমূল্যে নিত্যপণ্যের ভ্রাম্যমাণ দোকান চালু করেছে তারা। সোমবার এসব দোকান চালু করা হয়।

পুলিশ সূত্র জানায়, ‘আপনার পুলিশ, আপনার দরজায়’ শ্লোগানে এসব ভ্রাম্যমাণ দোকানে সাশ্রয়ী মূল্যে নিত্যপণ্যসামগ্রী পাওয়া যাবে। এর সার্বিক ব্যবস্থাপনায় জেলা পুলিশ।

বেলা সাড়ে ১১টায় বুড়িচং উপজেলার দেবপুর ফাঁড়ি এলাকাধীন ময়নামতি ওয়েট স্কেলের কাছের ভ্রাম্যমাণ দোকানটি উদ্বোধন করেন কুমিল্লা জেলা পুলিশ সুপার মো. সৈয়দ নুরুল ইসলাম।

এ সময় পুলিশ সুপার মো. সৈয়দ নুরুল ইসলাম বলেন, আপনাদের কাছে আমার আহ্বান, প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বাইরে বের হবেন না। ঘরে অবস্থান করুন। প্রয়োজন হলে পুলিশকে কল করুন, পুলিশ আপনার ঘরে প্রয়োজনীয় সবকিছু পৌঁছে যাবে। 

তিনি আরও বলেন, ব্যবসায়ী সমিতির সহযোগিতায় আমরা ১৮টি থানা এলাকায় ১৮টি ভ্রাম্যমাণ দোকান চালু করেছি। যেখানে বাজার থেকে ১০% বা ২০% কমে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য কিনতে পারবেন আপনারা। 

এরপর কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলার বিজয়পুর ও দেবিদ্বার উপজেলার জাফরগঞ্জ বাজারে ভ্রাম্যমাণ  দোকান উদ্বোধন করেন পুলিশ সুপার । এরপর একযোগে ১৮ টি থানায় ভ্রাম্যমাণ দোকান কার্যক্রম শুরু হয়। 

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- সদর দক্ষিণ উপজেলার চেয়ারম্যান গোলাম সারোয়ার, পদোন্নতিপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. আব্দুল্লাহ আল মামুন, মোহাম্মদ শাখাওয়াত হোসেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) তানভীর সালেহীন। আরও উপস্থিত ছিলেন- বুড়িচং থানার অফিসার ইনচার্জ মো. মোজাম্মেল হক, ওসি (তদন্ত) মোহাম্মদ মাসুদ খান, দেবপুর ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. সাজ্জাদ হোসেন, ইউপি চেয়ারম্যান মো. লালন হায়দার, মুক্তিযোদ্ধা ফজর আলী, এসআই নন্দন চন্দ্র সরকার , এনামুল হক, জিয়াউদ্দিন প্রমুখ।